1. admin@rangpurjournal.com : admin :
রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:২২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
হাতীবান্ধায় গৃহবধূকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে গ্রাম পুলিশের বিরুদ্ধে থানায় মামলা  হাতীবান্ধায় গরু ছিনতাই মামলার আসামী স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা গ্রেফতার রংপুরে খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিএনপি’র মানববন্ধন হাতীবান্ধায় দায়সারা প্রাণীসম্পদ প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত – রংপুর জার্নাল ভুয়া পোষ্য কোঠায় প্রধান শিক্ষকের চাকুরী অতঃপর শিক্ষা অধিদপ্তরে অভিযোগ হাতীবান্ধায় চেয়ারম্যান পদে স্বামী-স্ত্রীর মনোনয়নপত্র জমা লালমনিরহাট জেলাবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন- গোলাম মোস্তফা স্বপন পঞ্চগ্রাম ইউনিয়নবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন – চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক বসুনিয়া লালমনিরহাট সদর উপজেলাবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন – এরশাদুল করিম রাজু লালমনিরহাট সদর উপজেলাবাসীকে ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন- উপজেলা চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান সুজন

অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে আদিতমারীতে ইউপি চেয়ারম্যান বহিষ্কার – রংপুর জার্নাল

  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২৩
  • ৩৫ বার পঠিত

কাজী আসাদুজ্জামান খোকন:

অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার ভাদাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত রায়কে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ অক্টোবর) প্যানেল চেয়ারম্যান শামসুল হককে চেয়ারম্যানের দায়িত্ব দিয়ে একটি পত্র দিয়েছেন আদিতমারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জি আর সারয়োরার। তবে ওই চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত রায়ের দাবী তিনি প্রতিহিংসার রাজনীতির শিকার। এর আগেও একই কায়দায় কথিত অভিযোগ তুলের ওই উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক ইমরুল কায়েসকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়ে ছিলো।

এর আগে বুধবার এলজিআরডি মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সহকারী সচিব জেসমীন প্রধান স্বাক্ষরিত একটি পত্রে অর্থ আত্মসাতের বিষয়টি প্রমাণিত হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়।
ওই পত্রে বলা হয়, কৃষ্ণ কান্ত রায় ইউনিয়ন পরিষদের উপকারভোগীদের ৩ লাখ ২ হাজার ২৮০ টাকা বিতরণ না করে নিজের কাছে রেখেছেন। যা তদন্তে প্রমাণ মিলেছে। চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত রায়কে স্থায়ী বহিষ্কার কেন করা হবে না মর্মে আগামী ১০ কর্মদিবসের মধ্যে লালমনিরহাট জেলা প্রশাসকের কাছে এর জবাব দিতেও বলা হয়েছে।

তবে অপর একটি সূত্র বলেছেন, ভাদাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত রায়ের বিরুদ্ধে অর্থ আত্নসাতের অভিযোগটি সত্য নয়। তিনি মূলত ক্ষমতাসীন দলের দলীয় কোন্দলের কারণে প্রতিহিংসার রাজনীতি ও ষড়ষন্ত্রের শিকার। এর আগেও একই কায়দায় কথিত অভিযোগ তুলের ওই উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক ইমরুল কায়েসকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়ে ছিলো। পরে তা প্রত্যাহার করা হয়।

আদিতমারী উপজেলা নির্বাহী অফিসার জি আর সারওয়ার বলেন, বিষয়টি নিয়ে এর আগে তদন্ত করা হয়েছে। সে তদন্ত রিপোর্ট জেলা প্রশাসকের দপ্তরে পাঠানো হয়েছে। এরপর মন্ত্রণালয় থেকে চেয়ারম্যানকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2022 Rangpur Journal
Theme Customized By Theme Park BD