1. admin@rangpurjournal.com : admin :
লালমনিরহাটের বাউরা সীমান্তে দুই বাংলার মিলন মেলা অনুষ্ঠিত - রংপুর জার্নাল
রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ০৪:৪১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
হাতীবান্ধায় রাস্তা কেটে চলাচল বন্ধ করার প্রতিবাদে মানববন্ধন ফুটবল যুদ্ধে ইরানকে হারিয়ে শেষ ষোলোতে যুক্তরাষ্ট্র ইউএসএ কুষ্টিয়া জেলা সমিতি অভিষেক অনুষ্ঠিত সদরপুরে পুলিশ ও বিএনপির নেতাকর্মীদের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া, আহত-৪ পুলিশ হামিদ মালস্ এর প্রিন্সেস-রংপুর জার্নাল লালমনিরহাটে ভুয়া বিল ভাউচার দিয়েই প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সরকারি টাকা আত্বসাৎ পাটগ্রামে কর্মসৃজন প্রকল্প কাজের উদ্বোধন সৌদির প্রত্যেক খেলোয়াড়কে সাড়ে ১৬ কোটির রোলস রয়েস দিচ্ছেন যুবরাজ ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে আরো একটি ধর্ষণের অভিযোগ আদিতমারীতে আ.লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, পুলিশসহ ৩০জন আহত

লালমনিরহাটের বাউরা সীমান্তে দুই বাংলার মিলন মেলা অনুষ্ঠিত

  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২২
  • ৫৭ বার পঠিত

লালমনিরহাটের বাউরা সীমান্তে দুই বাংলার মিলন মেলা অনুষ্ঠিত।

 

রকিবুল হাসান রিপন লালমনিরহাট :
দুই বছর বন্ধ থাকার পর এ বছর নতুন করে বসলো দুই বাংলার মিলন মেলা।
কালী পূজা উপলক্ষে লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বাউরা এলাকার সীমান্তে চোঁখের জলে পূর্ন হলো দুই বাংলার মিলন মেলা। আইনের জটিলতা দিয়ে যেন এ মিলন মেলা আর বন্ধ না হয় সেই আবেদন আজ সকলের।
দুই বছর বন্ধ থাকার পর এ বছর জেলার পাটগ্রাম উপজেলার বাউরা ইউনিয়নের মেচেরঘাট সীমান্তে কালী পুজা উপলক্ষে মঙ্গলবার সকালে দুই বাংলার এ মিলন মেলা বসে। সকাল ৭ টার দিকে শুরু হওয়া এ মিলন মেলা চলে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত। শত শত মানুষ সীমান্তে ছুটে এসেছে রক্তের টানে। কাছের লোকজনদের দেখতে পেয়ে তারা কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। তবে অনেকই প্রাণের টানে ছুটে এলেও আত্মীয়দের দেখা না পেয়ে মন খারাপ করেও চোঁখের জল মুছতে মুছতে ফিরে গেছেন। আবার অনেকেই স্বজনদের সাথে স্মৃতি টুকো ধরে রাখতে তুলছেন সেলফি, ছবি।
দীপালী রানী (৫৪)। বাড়ি লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার সারপুকুর এলাকায়। মঙ্গলবার ভোর রাতে জেলার পাটগ্রাম উপজেলার বাউরা ইউনিয়নের মেচেরঘাট সীমান্তে এসে বসে আছে। কালী পূজা উপলক্ষে দুই বাংলার লোকজনের দেখার করার সুযোগ দিবে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ) ও বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। গুনছেন অপেক্ষার প্রহর,কখন শেষ হবে রাত। সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে তার খালাতো বোনের ছেলে জয়ধর বাবুর সাথে দেখা হয়। দেখা হলেও ভাগিনাকে ধরিয়ে ধরে আদর করেতে পারেনি দীপালী রানী। কারণ বাঁধা হয়ে দাড়িয়েছে দুই বাংলার সীমান্তে কাটাতারের বেড়া। ভাতিজার সাথে দেখা করে ফেরার পথে দীপালী রানী জানান, ১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের সময় তার খালা-খালু ভারতে চলে যায়। সেই সময় ছোট খালা দুইবোনের সাথে শেষ দেখা হয়। কয়েক বছর আগেও এক বার খালাতো বোনের সাথে দেখা হয়ে ছিলো দীপালী রানী। কিন্তু গত বছর তার সেই খালাতো বোন মারা গেলেও যেতে পারে নাই । আজ তার ভাগিনাদের কাছে পেলেও ধরিয়ে ধরতে পারে নাই।
মিলন মেলায় আসা সফিকুল ইসলাম, রবিন্দ্র নাথ জানান, বছরে একটা দিন আমরা কালী পূজা উপলক্ষে আমাদের আপন জনের দেখা করার সুযোগ পায়। সে যেন অব্যাহত থাকে। আইনের জটিলতা দিয়ে যেন এ মিলন মেলা বন্ধ না হয়। তারা আরো বলেন বছরে এমন একটি মিলনমেলা আমাদের মানবিক পৃথিবী তৈরীতে ভুমিকা রাখবে।
পাটগ্রাম উপজেলার বাউরা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান রবিউল হক মিরন বলেন, এ সীমান্তে প্রতিবছর কালী পূজা উপলক্ষে দুই বাংলার মিলন মেলা বসে। এতে অনেকেই তাদের পুরাতন আতানীয় স্বজনের দেখা করতে পেয়ে বেশি খুশি মনে বাড়ি ফিরেন। এটা অব্যাহত থাকা প্রয়োজন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2022 Rangpur Journal
Theme Customized By Theme Park BD