1. admin@rangpurjournal.com : admin :
রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ০৩:২০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
রাষ্ট্রপতি পুলিশ পদক পেলেন লালমনিরহাট জেলার পুলিশ সুপার রংপুর প্রেসক্লাব আয়োজিত মিডিয়া কাপের চ্যাম্পিয়ন টিসিএ – রংপুর জার্নাল স্টেপ আপ ফর টুমরো সংগঠনের উদ্যোগে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন পিজিয়ন ক্লাবের উদ্যোগে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন ফেন্সিডিলসহ ছাত্রলীগ নেতা আটক – রংপুর জার্নাল হাতীবান্ধায় হেফজ বিভাগের ছাত্রদের মধ্যে টেবিল বিতরণ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত স্থলবন্দর শ্রমিক লীগের অস্থায়ী কার্যালয়ের উদ্বোধন ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত – রংপুর জার্নাল ফাগুন – শফিউজ্জামান আতা রংপুরে চালু হলো সিটি বাস সার্ভিস পাবনা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে ১৮০ পিচ ইয়াবা সহ গ্রেফতার ২

রংপুর জেলা পরিষদ নির্বাচন : আ.লীগের প্রার্থী আছে ইমেজ, বিদ্রোহী প্রার্থী টাকা

  • আপডেট সময় : শনিবার, ৮ অক্টোবর, ২০২২
  • ১৩৯ বার পঠিত

রংপুর জেলা পরিষদ নির্বাচন : আ.লীগের প্রার্থী আছে ইমেজ, বিদ্রোহী প্রার্থী টাকা

মোঃ সাকিব চৌধুরী, রংপুর মহানগর প্রতিনিধিঃ

রংপুর জেলা পরিষদের নির্বাচন আগামী ১৭ অক্টোবর। এরই মধ্যে শুরু হয়েছে প্রচার। বিশেষ করে চেয়ারম্যান পদের প্রতিদ্বন্দ্বী দুই প্রার্থীকে নিয়েই এলাকায় চলছে আলোচনা-সমালোচনা। তারা দুজনই বীর মুক্তিযোদ্ধা।

একজন হলেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট ইলিয়াস আহমেদ, অন্যজন বিদ্রোহী প্রার্থী মোছাদ্দেক হোসেন বাবলু। যদিও বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ায় দল থেকে তাকে বহিষ্কার করা হয়েছে। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সরকারদলীয় প্রার্থী ইলিয়াসের আছে ইমেজ আর বিদ্রোহী প্রার্থী বাবলুর টাকা। এ কারণে লড়াই হবে তাদের মধ্যে।

নির্বাচন কমিশনে দাখিল করা হলফনামায় দেখা যায়, শিক্ষাগত যোগ্যতায় এগিয়ে থাকলেও বিদ্রোহী প্রার্থীর চেয়ে অর্থ-সম্পদে পিছিয়ে রয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট ইলিয়াস আহমেদ। তার নগদ অর্থ রয়েছে মাত্র ৩০ হাজার টাকা।

অন্যদিকে বিদ্রোহী প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা মোছাদ্দেক হোসেন বাবলুর ১৮ কোটি ৬৪ লাখ ৮০ হাজার ৫২৪ টাকা নগদ রয়েছে। বার্ষিক আয়েও এগিয়ে আছেন বিদ্রোহী প্রার্থী।

স্থানীয় রাজনীতিকরা বলছেন, মিঠাপুকুর ও পীরগাছাসহ জেলার বিএনপি-জামায়াত সমর্থিত জনপ্রতিনিধিরা নির্বাচনে ফ্যাক্টর হয়ে দাঁড়াতে পারেন। তাদের ভোট নিজের কব্জায় টানতে মরিয়া হয়ে উঠেছেন বিদ্রোহী প্রার্থী। যে কোনো মূল্যে বিএনপি-জামায়াতের ভোট তিনি নিতে চান। এর ফলে এবারের নির্বাচনে বিপুল অর্থের লেনদেন হতে পারে বলে সাধারণ ভোটারদের ধারণা।

আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট ইলিয়াস আহমেদ বর্তমানে রংপুর জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি। এবারে জেলা পরিষদ নির্বাচনে তিনি আনারস প্রতীক নিয়ে লড়ছেন।

তিনি ১৯৭১ সালের স্বাধীন বাংলা ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের অন্যতম নেতা ছিলেন। ১৯৭১ সালের ২৩ মার্চ ডিসি অফিসে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন। মুক্তিযুদ্ধকালীন রংপুর ক্যান্টনমেন্ট ঘেরাওয়ের অন্যতম সংগঠক ছিলেন তিনি।

অন্যদিকে তার প্রতিদ্বন্দ্বী মোছাদ্দেক হোসেন বাবলু মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে লড়ছেন। তিনি রংপুর জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা ও যুগ্ম আহবায়ক ছিলেন। এর আগে তিনি জাসদের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিলেন। এ ছাড়া রংপুর চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির প্রেসিডেন্ট ও এফবিসিসিআইয়ের পরিচালক এবং মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ডের জেলা কমান্ডার ছিলেন।

রংপুরের সিনিয়র জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন জানান, জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দুইজনসহ সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৪ এবং সাধারণ সদস্য পদে ২৯ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2022 Rangpur Journal
Theme Customized By Theme Park BD